কুমিল্লায় চাচীর সাথে ১৪ বছরের পরকীয়ার কারনে খু’ন!

ডেস্ক রিপোর্ট ● কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে চাচীর সঙ্গে পরকীয়া প্রেমে জ’ড়িয়ে পড়েন ভাতিজা জিয়াউর রহমান (৩০)। চাচা বিষয়টি টের পেলে শুরু হয় অশান্তি। অবশেষে যে চাচীর সঙ্গে পরকীয়া ছিল তিনিই জিয়াউর রহমানকে খু’ন করে সেপটিক ট্যাংকে লুকিয়ে রাখেন।

পরে চাচী মুরশিদাকে (৩৫) গ্রে’প্তার করে পু’লিশ। উপজে’লার আদ্রা উত্তর ইউপির দক্ষিণ শাকতলী গ্রামে ঘটেছে এ ঘটনা। ঘটনার পর থেকে নি’হতের চাচা বাহরাইন প্রবাসী বাছির উদ্দিন পলাতক রয়েছেন।

গত বুধবার রাতে জিয়াউর রহমান নিখোঁ’জ হন। এ ঘটনায় শুক্রবার নাঙ্গলকোট থা’নায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন নি’হতের বাবা হুমায়ুন কবির।

এরপরের দিন শনিবার রাতে চাচা বাছির উদ্দিনের বাড়ির সেপটিক ট্যাংক থেকে জিয়াউর রহমানের লা’শ উ’দ্ধার করে পু’লিশ। নি’হতের পিতা হুমায়ুন কবির অ’ভিযোগ করেন, তার ছোট ভাই বাছির উদ্দিন ও তার স্ত্রী মুরশিদা তার ছেলেকে খু’ন করে।

তার অ’ভিযোগ, তার ছেলে মুরশিদার কাছে পাঁচ লাখ টাকা পেতেন, এই টাকার জন্যই তার ছেলেকে হ’ত্যা করা হয়েছে। মা’মলার ত’দন্ত কর্মক’র্তা নাঙ্গলকোট থা’নার পু’লিশ উপ-পরিদর্শক (এসআই) ওবায়েদুল হক বলেন, ‘নি’হতের লা’শ উ’দ্ধার করে ময়নাত’দন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

প্রাথমিক জি’জ্ঞাসাবাদে নি’হতের চাচী মুরশিদা হ’ত্যার কথা স্বীকার করেছেন। দীর্ঘ ১৪ বছর ওই নারীর সঙ্গে জিয়াউর রহমানের পরকীয়া প্রেম চলছিল। এতে অতিষ্ঠ হয়ে তাকে শ্বাসরো’ধ হ’ত্যা করে বলে দা’বি করেছেন মুরশিদা।’

তিনি জানান, নি’হতের পরিবার মা’মলা দা’য়ের করেছেন। ময়নাতদ’ন্তের রিপোর্ট আসার পর হ’ত্যার কারণ জানা যাবে। এ ঘটনায় এলাকায় তোলপাড় শুরু হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here