মতলব দক্ষিণ থানার অফিসার ইনচার্জ স্বপন কুমার আইচ ৯ সেপ্টেম্বর মতলব দক্ষিণ ব্র্যাক অফিসের কর্মকর্তাগনের সাথে কোভিড-১৯ মহামারী চলাকালীন তাদের কার্যক্রম সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করেন। এ সময় তিনি তাদের চলমান কার্যক্রম সম্পর্কে অবহিত হন। ব্র্যাক একমাত্র এনজিও যা করোনা মহামারীর সময় কোনো গ্রাহকের নিকট থেকে কোন কিস্তি আদায় করে নাই। কোভিড-১৯ এর জীবাণু যাতে জনগণের মধ্যে ছড়িয়ে না পরে সেই লক্ষ্যে মাস্ক ব্যবহার, স্যানিটাইজার ব্যবহার, সাবান দিয়ে হাত ধৌত করন, সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা সহ সকল প্রকার সতর্কতামূলক কার্যক্রম ব্যাপকভাবে প্রচার প্রচারণার মাধ্যমে জনগণকে বুঝিয়েছেন। আলোচনাকালে ব্রাক মতলব দক্ষিণ এলাকা ব্যবস্থাপক মোঃ আবুল হাশেম খান, শাখা ব্যবস্থাপক মোঃ জয়নুল আবেদীন, শাখা ব্যবস্থাপক মোঃ মাহবুবুর রহমান, সহকারি শাখা ব্যবস্থাপক মোঃ তোফাজ্জল হোসেন, সিও প্রগতি লিটন চন্দ্র দাস গুপ্ত এবং ব্র্যাক কর্মসূচি সংগঠক খুরসিদা আক্তার, বর্গাচাষী উন্নয়ন কর্মসূচির শাখা ব্যবস্থাপক রমিজউদ্দিনসহ অন্যান্য কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন। এ সময় মতলব দক্ষিণ থানার অফিসার ইনচার্জ স্বপন কুমার আইচ বলেন, করোনা মহামারী চলাকালীন ব্র্যাক তাদের কোনো গ্রাহকের কাছ থেকে কোন কিস্তি উত্তোলন করেন নাই বরং গত মে মাসে তাহারা গ্রাহকদের পুনঃঅর্থায়ন লোন, সিজনাল ছয় মাসের কিস্তিবিহীন এককালীন লোন, ছোট ছোট কিস্তিতে রিশিডিউল লোন, মেডিকেল লোন, নির্ভরতা /জব হোল্ডার লোন, বিদেশগামীদের জন্য মাইগ্রেশন লোন, বর্গাচাষীদের জন্য উন্নয়ন কর্মসূচি লোন এবং ব্যবসায়িক লোন প্রদান করে আসছেন। এই সমস্ত কার্যক্রম পরিচালনার মাধ্যমে দেশের অর্থনৈতিক উনয়নে অবদান রাখায় উপস্থিত কর্মকর্তাগণকে ধন্যবাদ জানাই। তাহাদের নারী ও শিশু বিষয়ক অফিসার অসুস্থ থাকায় অন্য একজন মহিলা অফিসার এর মাধ্যমে নারী ও শিশু বিষয়ক সমস্যাগুলো শ্রবন করার জন্য অনুরোধ জ্ঞাপন করেন। এছাড়াও আমাদের দেশের সকল সম্প্রদায়ের ধর্মীয় বিষয়ের প্রতি সহানুভূতিশীল হয়ে/সম্মান প্রদশ’ন করে কাজ করার জন্য অনুরোধ করি। যেকোনো ধরনের সমস্যার সম্মুখীন হলে জানানোর জন্য অনুরোধ করেন এবং পুলিশি সকল প্রকার সহায়তা প্রদানের আশ্বাস প্রদান করেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here